Header Ads

●|● সুললিত কন্ঠে কুরআন পাঠ করা, মধুর কন্ঠে পড়তে বলা এবং তা শুনা মুস্তাহাব ●|●হযরত আবদুল্লাহ ইবনে মাসঊদ (রা) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা) আমাকে বললেনঃ আমাকে কুরআন পড়ে শুনাও। আমি জবাব দিলাম, ইয়া রাসূলুল্লাহ! আমি আপনাকে কুরআন পড়ে শুনাব অথচ কু

●|● সুললিত কন্ঠে কুরআন পাঠ করা, মধুর কন্ঠে পড়তে বলা এবং তা শুনা মুস্তাহাব ●|●হযরত আবদুল্লাহ ইবনে মাসঊদ (রা) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা) আমাকে বললেনঃ আমাকে কুরআন পড়ে শুনাও। আমি জবাব দিলাম, ইয়া রাসূলুল্লাহ! আমি আপনাকে কুরআন পড়ে শুনাব অথচ কুরআনওপর নাযিল করা হয়েছে? তিনি বললেনঃ আমি নিজের ব্যতীত অন্যের মুখ থেকে কুরআন শুনতে ভালোবাসি। অতঃপর আমি তাঁর সামনে সূরা নিসা পড়তে আরম্ভ করলাম। এ সূরাটি পড়তে পড়তে যখন আমি এ আয়াতটিতে আসলাম, “ফা কাইফা ইযা জিয়না মিন কুল্লি উম্মাতিন বিশাহীদীন ওয়া জিয়না বিকা আলা হা-উসায়ি শাহীদা।” (তারপর চিন্তা কর, যখন আমি প্রত্যেক উম্মাতের মধ্য থেকে একজন করে সাক্ষী হাযির করব এবং আপনাকে তাদের ওপর সাক্ষী হিসেবে পেশ করব, তখন কেমন হবে?) (সূরা নিসাঃ ৪১) তখন তিনি বললেনঃ এখন যথেষ্ঠ হয়েছে। আমি তাঁর দিকে ফিরে দেখলাম তাঁর চোখ মুবারক দু’টি থেকে অশ্রু গড়িয়ে পড়ছে।[রিয়াযুস স্বা-লিহীন :: বই ৯ :: হাদিস ১০০৮]

No comments

Powered by Blogger.